Home / লাইফ-স্টাইল / যেভাবে দূর হবে চোখের নিচের কালো দাগ

যেভাবে দূর হবে চোখের নিচের কালো দাগ

সৌন্দর্যের রহস্য সবার আগে উম্মোচন করে চোখ। কারণ চোখের সৌন্দর্য মুখের ওপর বিরাট একটা প্রভাব ফেলে। তাইতো প্রেমিকের ভাষায় বলতে হয়, সুন্দর চোখ হলো প্রশান্তির আশ্রয়।

মানুষের চেহারার সবচেয়ে স্পর্শকাতর অঙ্গই হল চোখ। কিন্তু সেই সুন্দর দুটি চোখের নিচে যদি দেখা যায় কালো দাগ বা আন্ডার আই ডার্ক সার্কেল তাহলে পুরো সৌন্দর্যেই মাটি হয়ে যায়। চোখের নিচে কালো দাগ চেহারাকে যেমন মলিন করে দেয়, তেমনি বয়সকে বাড়িয়ে দেয় অনেক বেশি।

আসল সৌন্দর্যকে লুকিয়ে ফেলে। যতই সাজগোজ করেন না কেন? প্রফুল্ল দেখাবে না। অথচ এ সমস্যার সমাধান আছে আপনার হাতের কাছেই। প্রাকৃতিক উপায়ে সাবধানে একটু যত্ন নিলেই আপনি দ্রুত সমাধান পেয়ে যাবেন।

তাহলে দেরি কেন? আসুন জেনে নিই ঘরে বসে কীভাবে দূর করবেন চোখের নিচের কালো দাগ :

আলু : আলু ভালো কর পেস্ট করে এর রস তুলায় নিয়ে চোখের ওপর ১০ মিনিটের জন্য ঢেকে রাখুন। খেয়াল রাখবেন পুরো চোখ যেন ঢেকে থাকে। এরপর ঠাণ্ডা পানি দিয়ে চোখ ধুয়ে ফেলুন।

টমেটো : চোখের নিচের কালো দাগ দূর করতে টমেটো খুবই উপকারী। এক চা চামচ টমেটোর রসের সঙ্গে এক চা চামচ লেবুর রস মিশিয়ে চোখের নিচে লাগান। ১০ মিনিট পর পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। দিনে দুইবার অন্তত এই প্যাক লাগাতে হবে।

টি-ব্যাগ : এটা ব্যবহারের পর ফ্রিজে রেখে দিন। ঠাণ্ডা হলে বের করে চোখ বন্ধ করে ১০ মিনিটের জন্য রেখে দিন। প্রতিদিন ব্যবহারে আপনার চোখের নিচের কালো দাগ দূর হবে সহজেই।

ঠাণ্ডা দুধ: একটি কটন বল ভিজিয়ে চোখে লাগান ঠাণ্ড দুধ। ১০ মিনিট পর পানি দিয়ে ধুয়ে ফেলুন। এতে চোখের ফোলাভাব কমে যাবে এবং কালো দাগ দূর হবে।

কমলা : কমলার রসের সঙ্গে দুই ফোঁটা গ্লিসারিন মিশিয়ে চোখের নিচে লাগান। এটা কালো দাগ দূর করার পাশাপাশি চোখকে আরো উজ্জ্বল করে তোলে।

বাদাম তেল : রাতে ঘুমাতে যাওয়ার আগে চোখের চারপাশে বাদামের তেল দিয়ে ম্যাসাজ করতে পারেন। এতে চোখের কালো দাগ দূর হওয়ার পাশাপাশি চোখের চামড়া কুচকানো ভাবও দূর হবে।

এছাড়া শসা এবং আলুর রস একসঙ্গে মিশিয়ে চোখে লাগান। কিছুক্ষণ পর হালকা ম্যাসাজ করে ধুয়ে ফেলুন।এতেও দারুন উপকার পাওয়া যায়।

Comments

comments

Check Also

ফ্রিজে বছরজুড়ে পাকা আম সংরক্ষণের সবচেয়ে সহজ উপায়!

ফ্রিজে বছরজুড়ে পাকা – রসে ভরা টসটসে পাকা আম এর স্বাদ যতই নিন না কেন, ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *